,

কুতুবদিয়ায় জনসমাগম ঘটানোর দায়ে চায়ের দোকানে পুলিশের অভিযান, দুটি টেলিভিশন জব্দ

কুতুবদিয়া প্রতিনিধি:

কুতুবদিয়ায় সামাজিক দূরত্ব বিঘ্নিত করে জনসমাগম ঘটিয়ে সিনেমা হল চালানোর দায়ে দুইটি চায়ের দোকানে অভিযান চালিয়েছে থানা পুলিশ। মঙ্গলবার (১৪জুলাই) বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে বড়ঘোপ ইউনিয়নের দক্ষিণ অমজাখালিস্থ আল-আমিন মার্কেটে এ অভিযান চালানো হয়। থানা সূত্রে জানা যায়, থানা পুলিশের নির্দেশ অমান্য করে লকডাউনের সামাজিক দুরত্ব বিঘ্নিত করে চায়ের দোকানে সিনেমা হল চালিয়ে আসছে কয়েকজন দোকানদার। বারবার নিষেধ করার পরও একই কাজ চালিয়ে যাওয়ায় ওই মার্কেটে অভিযান চালায় পুলিশ। ওই জনসমাগম ভেঙ্গে দিয়ে ২ দোকান থেকে টেলিভিশন দুটি জব্দ করা হয়। সেই সাথে করোনাকালীন সময়ে জনসমাগম না ঘটানোর জন্য অন্যান্য দোকানদারকেও নির্দেশ দেওয়া হয়। কুতুবদিয়া থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই মোসলেম উদ্দিন বাবলুর নেতৃত্বে এসআই সঞ্জয় সিকদার ও তার সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে আল-আমিন মার্কেটে অভিযান চালানো হয়। অভিযান চালিয়ে চায়ের দোকানে সিনেমা হল বানিয়ে জনসমাগম ঘটানোর দায়ে দুটি বড় টেলিভিশন জব্দ করা হয়। অভিযুক্ত চায়ের দোকানদার দুজন হলেন, দক্ষিণ অমজাখালী সিরাজুল ইসলামের ছেলে মাদক কারবারি আবু তৈয়ব ও মৃত ছদর আমিন লেডুর ছেলে মোঃ রনি। কুতুবদিয়া থানার নবাগত ওসি একেএম সফিকুল আলম চৌধুরী জানান, উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশনা মেনে চলে সব ধরনের ব্যবসা-বাণিজ্য পরিচালনার জন্য সকল দোকানদারকে মাইকিং করে জানিয়ে দেওয়া হয়। বিকাল ৪ টার পরে কোন ধরনের দোকান খোলা না রাখতে নির্দেশনা দেওয়া হয়। সেই নির্দেশনা অমান্য করায় আল-আমিন মার্কেট এলাকায় অভিযান চালিয়ে দুই চায়ের দোকান থেকে দুইটি টেলিভিশন জব্দ করা হয়। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান ওসি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*