,

পালংখালী বটতলী ইয়াবার ঘটনায় প্রকাশিত সংবাদের একাংশের প্রতিবাদ

অনলাইনসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে” পালংখালী বটতলী ইয়াবার ঘটনা নিয়ে স্হানীয় দুইজন কে রোহিঙ্গা অপহরণ করে নিয়ে গেছে তিনদিনেও থানায় অভিযোগ করেনি” শীর্ষক শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদখানা আমাদের দৃস্টি গোচর হয়েছে।

সংবাদের একাংশে আমাদের জড়িয়ে যে মিথ্যা অপপ্রচার চালিয়েছে তার উল্লেখিত অংশের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।
সংবাদে উল্লেখ করছে যে, গত ১৭ আগস্ট অভিযান চালিয়ে উখিয়া উপজেলার পালংখালীর বটতলী গ্রামের শামসুর পুকুর হতে ৩০ হাজার পরিত্যক্ত ইয়াবা উদ্ধার করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ওই অভিযানকে কেন্দ্র করে আমাদের প্রতিপক্ষ ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। ইতিমধ্যে মিথ্যা তথ্য সরবরাহ করে জাতির বিবেক সাংবাদিক ভাইদের বিভ্রান্তি করার পাঁয়তারা শুরু করেছে।
যা আমাদের নজরে এসেছে।
প্রকৃতপক্ষে আমরা এধরনের ঘটনা কিংবা মাদকের সাথে কোন দিন লিপ্ত ছিলাম না এবং আদৌও নেই। ভবিষ্যতে এধরনের ঘৃনিত পেশার সাথে সম্পৃক্ত হওয়ার ইচ্ছাও নেই। তাছাড়া মিয়ানমারের বাসিন্দাদের সাথে সিন্ডিকেট করে আমি নুর মোহাম্মদ ২ লাখ ইয়াবা পাচার করছি মর্মেও সংবাদে উল্লেখ করিয়াছে। যাহা হাস্যকর বটে।
আমরা এমন আজগুবি, মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন সংবাদের একাংশের তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানাই। এবং আমাদেরকে জড়িয়ে যে সংবাদটুকু প্রকাশ করেছে তাতে সংশ্লিষ্টদের বিভ্রান্তি না হওয়ার অনুরোধ জানাচ্ছি।
প্রতিবাদকারি-
নুর মোহাম্মদ, হাফেজ আহম্মদ, মিজান, বটতলী, পালংখালী।

মতামত...