,

ক্রিকেটে আসছে ‘স্মার্ট বল’

ক্রীড়া ডেস্ক :

এবার আসছে স্মার্ট ক্রিকেট বল। অস্ট্রেলিয়ার প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান কোকাবুরা তৈরি করছে এমন ক্রিকেট বল। অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি আসর বিগ ব্যাশ লীগের মধ্য দিয়ে চাল হতে পারে এমন বলের ব্যবহার।
ক্রিকেটে আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নতুন কিছু নয়। প্রতিনিয়ত আরও উন্নত প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়ছে ক্রিকেটে। তেমন ধারায় নতুন সংযোজন স্মার্ট ক্রিকেট বল। অস্ট্রেলিয়ার প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান কোকাবুরা তেমন বল বাজারে আনার ঘোষণা দিয়েছে। কোকাবুরা জানিয়েছে, স্মার্ট বল হিসেবে ডাকা হবে নতুন প্রযুক্তি নির্ভর এই বলকে।

সাধারণ ক্রিকেট বলের মতো আকার হবে এর। তবে অভ্যন্তরে থাকবে অত্যাধুনিক মাইক্রোচিপ। যার মাধ্যমে স্মার্ট ঘড়ি থেকে শুরু করে ফোন অ্যাপ ও অন্যান্য মাধ্যমে নেয়া যাবে তথ্য। এই তথ্যে সন্নিবেশিত থাকবে বল ছোড়ার মুহূর্তের গতি, এর গতিপথ, ডেলিভারির মুহূর্তে কেমন গতি ছিল- এসব কিছু। গতির সঙ্গে কত ডিগ্রি অ্যাঙ্গেলে বল দিক পরিবর্তন করে সেসব তথ্যও জানা যাবে এর মাধ্যমে। যাতে করে ডিআরএস প্রযুক্তি আরও সুনির্দিষ্ট ও নির্ভুল তথ্য পেতে পারে । কোকাবুরা জানিয়েছে, আপাতত আগামী বছরের বিগ ব্যাশ লক্ষ্য করে মাঠে এর প্রয়োগের ইচ্ছা তাদের। তবে ওয়ানডে ক্রিকেটে ব্যবহারের আগে পরীক্ষামূলকভাবে তা ব্যবহার করা হবে বিভিন্ন টি-টোয়েন্টি লীগে। অত্যাধুনিক প্রযুক্তির এই ক্রিকেট বলের কাজ অবশ্য চলছিল দুই বছর ধরে। যার বাস্তব প্রয়োগ দেখা যাবে অচিরেই।
স্মার্ট বলের আগমনকে সাধুবাদ জানিয়েছে অজি ক্রিকেট বোর্ড ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াও। তবে ঘরোয়া টুর্নামেন্টে এটি ব্যবহারের আগে আরো পরীক্ষা-নিরীক্ষার পক্ষে তারা। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার হেড অব ক্রিকেট অপারেশন্স পিটার রোচ বলেন, মাঠে এমন ক্রিকেট বলের (স্মার্ট বল) ব্যবহারটা হবে দারুণ কিছু। এতে সুবিধা পাবে কোচ খেলোয়াড় এমনকি সমর্থকরাও। আমরা যদি আমাদের টুর্নামেন্টগুলোতো এটা ব্যবহার করতে চাই তাহলে আমাদের দেখতে হবে এমন বলের ব্যবহারে খেলাটির অন্য বিষয়গুলো যেন প্রভাবিত না হয়।
দুদিন আগে লর্ডসে কোকাবুরা স্মার্ট বলের লঞ্চিং অনুষ্ঠানে ইংলিশ উইকেট-রক্ষক ব্যাটসম্যান জস বাটলার বলেন, এটা অনুশীলনেও অনেক কাজে দেবে। শুরুতে এর ফিডব্যাক কেমন হয় তা দেখতে অপেক্ষায় রয়েছি। এটা রেগুলার বলের মতোই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*