,

দুই শিশুকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে মাকে ধর্ষণ

কালের কণ্ঠ অনলাইন :

জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় ঘরে ঢুকে দুই শিশুসন্তানকে জিম্মি করে তাদের মাকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে এক প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে। গত বৃহস্পতিবার ভোরে এ ঘটনার পর শনিবার ওই গৃহবধূ মামলা দায়ের করেছেন। এ ছাড়াও ঢাকার সাভার উপজেলার আশুলিয়ায় এক বিশ্ববিদ্যালয়ছাত্রীকে ধর্ষণ এবং এর ভিডিও ধারণের অভিযোগে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর :

জামালপুর 
গত বৃহস্পতিবার ভোরে জেলার বকশীগঞ্জ উপজেলার চরকাউরিয়া এলাকায় দুই শিশু সন্তানকে জিম্মি করে তাদের মাকে ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে। গতকাল দুপুরে প্রতিবেশী মো. জামানের বিরুদ্ধে বকশীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন ধর্ষণের শিকার ওই নারী (২৫)। 

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, তাঁর হতদরিদ্র স্বামী ঢাকায় রিকশা চালান। দুই শিশুসন্তান নিয়ে তিনি স্থানীয় মিস্টার আলী নামের এক ব্যক্তির বাড়িতে বসবাস করেন। স্বামী বাড়িতে না থাকার সুযোগে বৃহস্পতিবার ভোরে তাঁর ঘরে ঢোকে প্রতিবেশী জামান। সে দুই শিশুসন্তানকে ধারালো ছুরি উঁচিয়ে ভয় দেখিয়ে আটকে রাখে। পরে দুই শিশুর সামনেই জামান ওই নারীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। একপর্যায়ে ওই নারীর চিৎকারে বাড়ির মালিক মিস্টার আলী এগিয়ে গেলে ধর্ষণকারী জামান দ্রুত পালিয়ে যায়। 

বকশীগঞ্জ থানার ওসি এ কে এম মাহবুব আলম জানান, ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ভিকটিমকে জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আসামি জামানকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

সাভার (ঢাকা) 
সাভারের আশুলিয়ায় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ এবং সে দৃশ্য ভিডিও ধারণ করার অভিযোগে এক যুবককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। গত শুক্রবার দুপুরে ভুক্তভোগী ওই ছাত্রী বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় মামলা দায়ের করলে রাতেই আশুলিয়ার জামগাড়া এলাকা থেকে অভিযুক্ত তানভীর রায়হানকে (২৬) গ্রেপ্তার করা হয়। এরপরে গতকাল শনিবার দুপুরে তাকে আদালতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। 

গ্রেপ্তারকৃত যুবক তানভীর রায়হান ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার জিন্নাঘর এলাকার বশির হাওলাদারের ছেলে। সে রাজধানীর মোহাম্মদপুর টাউনহল এলাকায় ভাড়া বাসায় বসবাস করে। আশুলিয়ার ওই ছাত্রী ঢাকায় একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ে। 

আশুলিয়া থানার এসআই আজহার উদ্দিন জানান, ছাত্রীকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে।

মতামত...