,

টেকনাফে উদ্ধার হওয়া লাশটি চট্রগ্রাম কলেজ ছাত্রের

নিজস্ব প্রতিবেদক: :

কক্সবাজার বেড়াতে আসা চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রের লাশ টেকনাফ উপকূল থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। কি কারণে এই ন্যাক্কারজনক ঘটনার সুত্রপাত তারই ক্লু সহজে মিলছেনা।
জানা যায়, ৪ জানুয়ারী সকালে লোকজন টেকনাফের বাহারছড়া উপকূলীয় নোয়াখালী পাড়া বীচে একটি গুলিবিদ্ধ রক্তাক্ত মৃতদেহ দেখতে পেয়ে স্থানীয় মেম্বার মোঃ ইলিয়াছকে অবহিত করে। তিনি বিষয়টি থানিা পুলিশকে অবহিত করলে বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের তদন্ত কর্মকর্তা আনোয়ার হোছনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরীর পর মৃতদেহ উদ্ধার করে। এরপর নিহত ব্যক্তি চট্টগ্রামের পশ্চিম আমিরাবাদের কামাল উদ্দিনের পুত্র সাজ্জাদ হোসেন ইমরান (২৫) এবং সে চট্টগ্রাম কলেজের ১মবর্ষের ছাত্র বলে পরিচয় নিশ্চিত হন। এরপর দুপুরেই মৃতদেহ পোস্টমর্টেমের জন্য কক্সবাজার মর্গে প্রেরণ করা হয়।
এই ব্যাপারে নিহতের ভাই ইরফানের বন্ধু সাংবাদিক আরমান জানান, গত পরশু ২ জানুয়ারী সে কক্সবাজার আসবে বলে বাড়ি হতে বেরিয়ে আসে। ৪ জানুয়ারী সকাল ১১টারদিকে বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র কর্মকর্তা নিহত ইমরানের বাবা কামালের নিকট ফোনের পর অনলাইন নিউজ পোর্টালে ছবি দেখা ও ঘটনাস্থলে এসে তার মৃতদেহ সনাক্ত করে। তার শরীরের বিভিন্ন অংশে ৫টি বুলেটের আঘাত রয়েছে। কি কারণে এই ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটল তা নিহতের পরিবার কিছুই বুছে উঠতে পারছেনা। এদিকে বিকালেই ময়না তদন্তের জন্য মৃতদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।
এই ব্যাপারে বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন জানান, কোন সন্ত্রাসী গ্রæপ তাকে মেরে হয়তো এখানে ফেলে গেছে। এই ব্যাপারে টেকনাফ মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে। ##

মতামত...