,

ভারতের আদালতের রায়ে সালাহ উদ্দিন বেকসুর খালাস

বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন আহমেদকে  খালাস দিয়েছে ভারতের শিলংয়ের একটি আদালত।

ভারতে অনুপ্রবেশের অভিযোগ ছিল তার বিরুদ্ধে। আজ শুক্রবার শিলংয়ের আদালত ফরেনার্স অ্যাক্টের ওই মামলায় তাকে খালাস দেন।

২০১৫ সালের মার্চে ঢাকার উত্তরা থেকে নিখোঁজ হওয়ার প্রায় দুই মাস পর মে মাসে ভারতে মেঘালয়ের রাজধানী শিলংয়ের একটি রাস্তায় উদভ্রান্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয় সালাউদ্দিন আহমেদকে। তবে কে বা কারা তাকে ওখানে নিয়ে এসেছিল বা কীভাবে তিনি ঢাকা থেকে শিলংয়ে গেলেন সে ব্যাপারে সালাউদ্দিন আহমেদ কিছুই জানাতে পারেননি।

পরিবার অভিযোগ করেছে, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা তাকে উত্তরার বাসা থেকে তুলে নিয়ে গেছে।

ভারতে অনুপ্রবেশের অভিযোগে ২০১৫ সালের মার্চে বিএনপির এই নেতার বিরুদ্ধে মামলা করে মেঘালয় পুলিশ। সিটি থানায় দায়ের করা ওই মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয় তাকে।

তবে শারীরিক অসুস্থতার কারণে বিচারক তাকে শর্তসাপেক্ষে জামিন দেন। জামিনের প্রধান শর্তই হলো- শিলংয়ের বাইরে যাওয়া চলবে না। আর সে কারণেই সালাউদ্দিন আহমেদ আপাতত সেখানেই একটি গেস্ট হাউস ভাড়া করে আছেন। অসুস্থতার জন্য তার চিকিৎসাও চলছে ওই শহরেই।

এদিকে, এই রায়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে সালাউদ্দিন আহমেদ গণমাধ্যমকে বলেছেন, “আমি ন্যায় বিচার পেয়েছি। দ্রুত দেশে ফেরত যেতে চাই।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*