,

টেকনাফে পৃথক অভিযানে চার’কোটি ৩০লাখ টাকার পরিত্যাক্ত ইয়াবা উদ্ধার

মুহাম্মদ জুবাইর, টেকনাফ ::
টেকনাফের হোয়াইক্যং ও সদর ইউনিয়নের সৈকত উপকুল হতে পৃথক অভিযানে ৯০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। তবে এসময় কোন পাচারকারীকে আটক করতে পারেনি সংশিøষ্ট প্রশাসন।
জানা যায় ১০ সেপ্টেম্বর সকাল পৌনে ১২টার দিকে টেকনাফ হতে কক্সবাজারগামী সরাসরি স্পেশাল সার্ভিস পরিবহন (চট্টমেট্টো-ব-১১-১১৩১) বাসটি টেকনাফ থানাধীন হোয়াইক্যং বিজিবি চেকপোষ্টে আসলে সিগন্যাল দিয়ে থামায়। পরবর্তীতে বাসটি তল্লাশী’র একপর্যায়ে বাসের পিছনের দিকে যাত্রীবিহীন সীটের নীচে পরিত্যক্ত অবস্থায় পলিথিন দ্বারা মোড়ানো একটি প্যাকেট দেখতে পায়।
প্যাকেটটি খুলে গণনা করে দেখা যায় ৩০ লাখ টাকা মূল্যমানের ১০ হাজার পিছ ইয়াবা রয়েছে।
২বর্ডার গার্ড বিজিবি’র অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল মোঃ আছাদুদ-জামান চৌধুরী সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান জব্দকৃত ইয়াবা ট্যাবলেটগুলো ব্যাটালিয়ন সদরে জমা রাখা হয়েছে, যা পরবর্তীতে উর্দ্ধতন কর্মকর্তা, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের প্রতিনিধি, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও মিডিয়া কর্মীদের উপস্থিতিতে ধ্বংস করা হবে।

৮০ হাজারইয়াবা উদ্ধার করল কোষ্টগার্ড ::

অন্যদিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ১০ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ৫ ঘটিকায় বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড বাহিনী পূর্ব জোনের অধীনস্থ সিজি স্টেশান টেকনাফ কর্তৃক একটি বিশেষ অভিযান পরিচালনা করা হয়। উক্ত অভিযানে টেকনাফ থানার অন্তর্গত টেকনাফের মেরিন ড্রাইভ সড়ক সংলগ্ন টেকনাফ সদর ইউনিয়নের লম্বরী ঘাট এলাকা থেকে ৮০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত ইয়াবা ট্যাবলেট গুলোর আনুমানিক বাজার মূল্য ৪(চার) কোটি টাকা মাত্র। এসময় কোন পাচারকারীকে আটক করা সম্ভব হয়নি। জব্দকৃত ইয়াবা গুলোকে টেকনাফ থানায় হ¯Íান্তর করা হয়েছে।
সহকারী গোয়েন্দা পরিচালক লেঃ কমান্ডার বিএন আব্দুল্লাহ আল মারুফ সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

মতামত...