,

ট্রাম্পের হুমকির পর ১১ যুদ্ধজাহাজ পাঠিয়েছে রাশিয়া

নিউজ ডেস্ক :

সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের সম্ভাব্য হামলা মোকাবেলায় ভূমধ্যসাগরে ১১টি যুদ্ধজাহাজ পঠিয়েছে রাশিয়া। বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ‘স্মার্ট ক্ষেপণাস্ত্র আসছে, রাশিয়া প্রস্তুত হও’ শীর্ষক হুমকি দেয়ার পর ভূমধ্যসাগরে সিরিয়ার তারতাস বন্দরে মোতায়েন থাকা রাশিয়ার নৌবহর থেকে এ ১১টি যুদ্ধজাহাজ ইতিমধ্যে বন্দর ছেড়েছে। খবর ফক্সনিউজ ও স্পুটনিকনিউজের।

খবরে বলা হয়েছে, ইসরাইলের স্যাটেলাইট অপারেটর প্রতিষ্ঠান আইএসআই এর কাছে রাশিয়ার যুদ্ধজাহাজ মোতায়েনের ছবি ধরা পড়েছে। সংস্থাটি এ সম্পর্কিত কিছু ছবি প্রকাশ করেছে।

তবে প্রকাশিত এ তথ্য নিয়ে রাশিয়ার পক্ষ থেকে এখনো কোনো মন্তব্য করা হয়। ফলে ভূমধ্যসাগরে যুদ্ধজাহাজ মোতায়েনের বিষয়টি নিয়ে নতুন করে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে।

এদিকে রাশিয়ার সংবাদমাধ্যম মস্কোটাইমস যুদ্ধজাহাজ মোতায়েনকে নৌবাহিনীর সামরিক মহড়া হিসেবে উল্লেখ করেছে। তবে মস্কোটাইমসের খবরে রাশিয়া কর্তৃপক্ষের কোনো উদ্ধৃতি দিয়ে এটিকে সামরিক মহড়া হিসেবে নিশ্চিত করা হয়নি।

বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প রাশিয়াকে হুমকি দিয়েছিলেন। এক টুইটবার্তায় তিনি বলেছিলেন, সিরিয়ার আকাশে রাশিয়া ক্ষেপণাস্ত্র ভূপাতিত করার হুমকি দিয়েছে। স্মার্ট ক্ষেপণাস্ত্র আসছে। রাশিয়া প্রস্তুত হও।

ট্রাম্পের ওই হুমকির পর অবশ্য রাশিয়া নেতিবাচক কোনো প্রতিক্রিয়া দেখায়নি। রাশিয়ার পক্ষ থেকে বলা হয়, রাশিয়া টুইটার কূটনীতিতে বিশ্বাসী নয়। তবে যুক্তরাষ্ট্র ক্ষেপণাস্ত্র হামলা করলে তা আসাদ সরকার নয় বরং যারা বিদ্রোহী সন্ত্রাসী তাদের টার্গেট করুন।

মতামত...